আশুলিয়ায় বাসা ভাড়া পরিশোধ ব্যার্থ হওয়ায় স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণ - adsangbad.com

সর্বশেষ


Wednesday, January 15, 2020

আশুলিয়ায় বাসা ভাড়া পরিশোধ ব্যার্থ হওয়ায় স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণ


সাভার প্রতিনিধি : আশুলিয়ায় বাসা ভাড়া পরিশোধ ব্যার্থ  হওয়ায় স্বামীকে আটকে রেখে এক গার্মেন্ট শ্রমিক নারীকে (২৪) গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।
এ ঘটনায় প্রধান অভিযুক্ত বাড়ির মালিক মো. কালামকে পুলিশ আটক করলেও পলাতক রয়েছে তার সঙ্গীরা ।
বুধবার(১৫ই জানুয়ারী) দুপুরে আশুলিয়ার পশ্চিম জামগড়া এলাকার ফকির বাড়ি থেকে অভিযুক্ত বাড়ির মালিক মো. কালামকে আটক করে পুলিশ। এর আগে মঙ্গলবার দিবাগত গভীর রাতে একই বাড়িতে এই ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।
আটক বাড়ীওয়ালা কালাম পেশায় ফার্মেসী ব্যবসায়ী মো. কালাম (৪৫) আশুলিয়ার পশ্চিম জামগড়া এলাকার ফকির বাড়ির বাসিন্দা। 
ভুক্তভোগী নারী শ্রমিকের অভিযোগ, তিনি পশ্চিম জামগড়া এলাকায় মো. কালামের বাড়ির একটি কক্ষে ভাড়া থেকে পোশাক কারাখানায় কাজ করেন। মঙ্গলবার রাতে পরিবহন চালক স্বামী ও তিনি নিজ কক্ষেই ছিলেন।
রাত ১২টার দিকে বাড়ির মালিক কালাম ও তার পাঁচ সঙ্গী নিয়ে বকেয়া ডিসেম্বরের মাসের ২ হাজার টাকা ভাড়ার জন্য তার কক্ষে আসেন। পরে কারখানায় তাদের বেতন পরিশোধ করা হয়নি বলে বাড়ির মালিককে জানান তিনি। কিন্তু মালিক কালামের সহযোগী দুইজন তার স্বামীকে পাশের কক্ষে আটকে রাখে। পরে জোরপূর্বক তার স্বর্ণের চেইন, চুরি, কানের দুল ও নাকের ফুল খুলে নেন তারা।
ওই নারী আরও বলেন, এরপর তিনজন তার হাত-পা চেপে ধরে এবং বাড়ির মালিক তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে।
বাকি তিনজন পরবর্তীতে ভোর ৪টা পর্যন্ত তাকে ধর্ষণ করে চলে যায়। পরে সকালে তিনি আশুলিয়া থানায় এসে অভিযোগ করেন।
এদিকে, ঘটনার পরপর আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক সেলিম রেজা ঘটনাস্থল গিয়ে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত বাড়ির মালিক মো. কালামকে আটক করেন। তবে বাকি অভিযুক্তদের এখনও আটক করা সম্ভব হয়নি।
আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক সেলিম রেজা জানান, ভুক্তভোগী ওই নারী শ্রমিকের অভিযোগ পাওয়ার পরপরই অভিযুক্ত বাড়ির মালিক কালামকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় বাকি অভিযুক্তদের আটকের পাশাপাশি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি। 

Post Bottom Ad

Responsive Ads Here

Pages